বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১৭ জুন ২০১৯

রংপুর আঞ্চলিক কার্যালয়ের সাফল্য

বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট, আঞ্চলিক কার্যালয়, রংপুর টেকসই খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের জন্য রংপুর বিভাগের আটটি জেলার (রংপুর, গাইবান্ধা, কুড়িগ্রাম, লালমনিরহাট, নীলফামারী, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও ও পঞ্চগড়) ৫৯ উপজেলা নিয়ে কাজ করছে। দেশের ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার প্রধান খাদ্য ভাতের চাহিদা মেটানোর লক্ষ্যে ধানের উচ্চ ফলনশীল ও জলমগ্নতা, খরা, ঠান্ডা সহিষ্ণু, সুগন্ধি জাত উদ্ভাবনে সহায়তা এবং সহযোগী উৎপাদন প্রযুক্তি উদ্ভাবনের মাধ্যমে এর ভিতকে শক্তিশালী করা ব্রি আঞ্চলিক কার্যালয়, রংপুরের অন্যতম লক্ষ্য। এ লক্ষ্যে বিগত চার বছরে মোট ১৫ টি উচ্চ ফলনশীল ধানের জাত উদ্ভাবনে ব্রি রংপুর সহায়তা করেছে। এছাড়া ব্রি রংপুর, বৃহত্তর রংপুর-দিনাজপুরাঞ্চলে ব্রি ধান৩৪, ব্রি ধান৪৮, ব্রি ধান৪৯, ব্রি ধান৫০, ব্রি ধান৫১, ব্রি ধান৫২, ব্রি ধান৫৬, ব্রি ধান৫৭, ব্রি ধান৫৮, ব্রি ধান৬২, ব্রি ধান৬৩, ব্রি ধান৬৬, ব্রি ধান৭০, ব্রি ধান৭১ এবং ব্রি ধান৭৫, ব্রি ধান৭৯, ব্রি ধান৮১ মাঠ পর্যায়ে সম্প্রসারণে গুরম্নত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। তাছাড়া ব্রি উদ্ভাবিত আধুনিক জাতের প্রায় ৫৫ মেট্রিক টন ব্রিডার ও মানঘোষিত বীজ উৎপাদন করে বীজ উৎপাদন নেটওর্য়াক ও কৃষকের মধ্যে বিতরণ করেছে। প্রযুক্তি হস্তান্তরের উদ্দেশ্যে প্রায় ১৫০০ জন কৃষককে প্রশিক্ষণ প্রদান, ১৫০ টি প্রদর্শনী/মেলা/সেমিনার/কর্মশালা সম্পন্ন করা হয়েছে। অধুনালুপ্ত অত্র অঞ্চলের ১০ টি ছিটমহলের ৪৫০ জন কৃষকের মাঝে ব্রি উদ্ভাবিত নতুন জাতের বীজ ও ধান উৎপাদনের আধুনিক কলা-কৌশলের প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে। ধান উৎপাদনের বিভিন্ন প্রযুক্তি সম্পর্কিত প্রায় ২২,০০০ কপি লিফলেট, ফোল্ডার এবং আধুনিক ধান চাষের কৃষক প্রশিক্ষণ ম্যানুয়েল প্রকাশ ও বিতরণ করা হয়েছে।



Share with :

Facebook Facebook